রবিবার , জুন ১৬ ২০২৪
Home / সারা দেশ / ঠাকুরগাঁওয়ে সরকারের আদেশ’কে অমান‌্য করে নেওয়া হচ্ছে এইচএসসি পরিক্ষা

ঠাকুরগাঁওয়ে সরকারের আদেশ’কে অমান‌্য করে নেওয়া হচ্ছে এইচএসসি পরিক্ষা

মোঃ আনোয়ার হোসেন,ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি :

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাস (কোভিড১৯ ) ঠেকাতে ও স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে সরকার চলতি বছরের ১৭ই মার্চ থেকে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানবন্ধ ঘোষনা করেছেন। সরকারি আদেশ অমান্য ও স্থানীয় প্রশাসনকে বৃদ্ধা আঙুলি দেখিয়ে ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার রুহিয়া গিন্নি দেবী আগরওয়াল মহিলা কলেজেশিক্ষার্থীদের মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ডেকে নেওয়া পরীক্ষা হচ্ছে ।

 সরেজমিনে দেখা যায়, বুধবার (১২ আগষ্ট ২০) সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে এইচএসসি শিক্ষার্থীরা পরীক্ষায় অংশগ্র হনের জন্য কলেজে ভীড় জমায়। উপবৃত্তি প্রদানে মেধা যাচাই করার জন্য শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা নেয়া হচ্ছে।

 কলেজ সূত্রে জানা যায়, কলেজে ২০২০ সালে অধ্যয়নরতএইচএসসি শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তির তালিকা প্রস্তুত করারজন্য মেধা যাচাইয়ের উদ্যোগ নেওয়া হয়। তাই পরীক্ষারজন্য তারিখ নির্ধারণ করে মোবাইল ফোনে শিক্ষার্থীদেরনোটিশ করা হয়।

 সেই মোতাবেক মানবিক শাখার শিক্ষার্থীরা ১০ আগস্ট,ব্যবসা শাখা শিক্ষার্থীরা ১১ মার্চ ও বিজ্ঞান শাখার শিক্ষার্থীরা১২ আগস্ট কলেজ ক্যাম্পাসে উপস্থিত হয়ে পরীক্ষায়অংশগ্রহন  করে।

শিক্ষার্থীরা জানান, সারাদেশেই সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকরোনা ভাইরাসের জন্য বন্ধ সেখানে কলেজ কর্তৃপক্ষেরবেঁধে দেয়া সময়ের মধ্যে কলেজে এসে প্রবেশপত্র সংগ্রহকরে পরীক্ষায় অংশ নিতে হচ্ছে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যেপ্রবেশপত্র সংগ্রহ করে পরীক্ষায় অংশগ্রহন করতে নাপারলে পরে ঝামেলা হতে পারে এই কারণে নির্ধারিতসময়েই সংগ্রহ করে পরীক্ষা দিয়েছি।

আর পরিক্ষার ফি হিসেবে বিজ্ঞান শাখার জন্য ৭শ, মানবিকও বানিজ্য  শাখার জন্য ৫শ টাকা নেয়া হয়েছে বলেওঅভিযোগ করে শিক্ষার্থীরা।

জেলা সিভিল সার্জন সুত্রে জানা যায়, এম আব্দুর রহিমমেডিকেল কলেজ, দিনাজপুর হতে প্রাপ্ত সর্বশেষ রিপোর্টঅনুযায়ী ঠাকুরগাঁও জেলায় বুধবার (১২ আগষ্ট) এপর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ৫৬৯ জন। সুস্থ হয়ে ছাড়পত্রপেয়েছেন ২৯২জন। আর মৃত্যু হয়েছে ৯ জনের।

এবিষয়ে জানতে চাইলে কলেজের  অধ্যক্ষ বদরুলইসলামের সাথে তার মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তাকে তিনি বলেন গরীব মেধাবী ছাত্রীদের মাঝে উপবৃত্তি প্রদান করা হবে। যার জন‌্য আমরা শিক্ষার্থীদের ডেকে
পরীক্ষা ও সাক্ষার কার নিয়েছি।

ঘটনা স্থানে স্থানীয় প্রশাসন ও রুহিয়া থানা পুলিশ পরিদর্শন করেন।

এব্যাপারে জানতে চাইলে জেলা শিক্ষা অফিসার খন্দকারমোঃ আলাউদ্দীন আল আজাদের মুঠোফোনে একাধিকবার ফোন করা হলে তিনি ফোন ধরেননি। যাহার ফোন নাম্বার: মোবাইল ০১৭১৫-২৭০৭২০ টেলিফোন ০৫৬১-৬১৮৬৬

এবিষয়ে জানতে চাইলে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোঃ নুর কুতুবুল আলম বলেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা রেখে এই ধরনের কার্যক্রম করার কোন সুযোগ নেই। যেহেতু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

About admin

Check Also

জলঢাকায় মাদক বিরোধী বিশেষ অভিযানে ৮৪২ বোতল ফেন্সিডিলসহ ৩ শীর্ষ মাদক কারবারিকে গ্রেফতার র‌্যাব

রেখা মনি, বিশেষ প্রতিনিধি, রংপুরঃ নীলফামারীর জলঢাকা উপজেলার শেখমারী ইউনিয়নের মানিকগঞ্জ গ্রামে মাদক বিরোধী বিশেষ …

চিলমারীতে গলায় রশি দিয়ে বৃদ্ধের আত্মহত্যা

আলমগীর হোসাইন,  কুড়িগ্রামের চিলমারীতে গলায় রশির ফাঁস দিয়ে এক বৃদ্ধ আত্মহত্যা করেছে। ওই বৃদ্ধের নাম …

চিলমারী মডেল থানা পরিদর্শন করলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার 

চিলমারী  (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের চিলমারী মডেল থানার সার্বিক কার্যক্রম সরেজমিনে পরিদর্শন করেছেন উলিপুর সার্কেলের অতিরিক্ত …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *